Latest Trending Online News Portal : Bongobani.com

Sports News District News National News Updates

এই মুহূর্তে জেলা রাজ্য

তন্ময়ের পর এবার বিদ্রোহী বর্ষীয়ান বাম নেতা কান্তি গঙ্গোপাধ্যায়

বঙ্গবাণী ব্যুরো ডেস্ক: একুশের বিধানসভার নির্বাচনে একটা আসনও জিততে পারেনি সিপিআইএমের প্রার্থীরা। নির্বাচনে হেরে যাওয়ার পর সিপিএম প্রার্থী তন্ময় ভট্টাচার্য দলীয় শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিয়ে বিপদে পড়েছেন আগেই ।দল বিরোধী মন্তব্যের অভিযোগের ভিত্তিতে তাকে শোকজ করা হয়েছে সিপিএমের জেলা কমিটির তরফে। তন্ময়ের পর এবার নির্বাচনের ফল প্রকাশে সিপিএমের ভরাডুবি প্রসঙ্গে মুখ খুললেন বর্ষীয়ান বাম নেতা ক্লান্তি গঙ্গোপাধ্যায়।

ভোটে মানুষের রায় কে কুর্নিশ জানিয়ে দলের শীর্ষ নেতাদের তোপ দাগালেন তিনি। কার্যত বামেদের সঙ্গে তৃণমূলের জোটের সওয়াল তুললেন তিনি। বাংলায় বামেদের কৌশলগত ভুল প্রসঙ্গে মন্তব্য করে তিনি বলেন,” নির্বাচনে বাংলার মানুষ যা রায় দিয়েছে তাকে আমি কুর্ণিশ জানায়। কারণ ধর্মীয় ফ্যাসিবাদকে যে একমাত্র রুখতে পারে তৃণমূল কংগ্রেস ,বামেরা যে সেটা পারবে না এটা সাধারন মানুষ অনেক আগেই বুঝতে পেরেছে সেই কারণে আমি মানুষের রায়কে কুর্নিশ জানাই। আমরা মানুষের কাছে বিশ্বাসযোগ্যতা কেন অর্জন করতে পারিনি তারা আত্মসমালোচনা আমাদের বামপন্থী নেতাদের নিজেদের মধ্যেই করা উচিত এখন”। শুধু এখানেই তিনি থেমে থাকেননি এরপর তিনি সিপিএমের সঙ্গে আইএসএফের জোটের প্রসঙ্গেও অভিযোগের আঙুল তুলেছেন বামপন্থী শীর্ষ নেতাদের দিকে।

তিনি ক্ষোভ উগড়ে দিয়ে বলেন,” এবারের নির্বাচনে আইএসএফের সঙ্গে সিপিএমের জোট করাটাই ছিল সব থেকে বড় ভুল। বাংলার মানুষ যা মেনে নেয়নি কখনোই ।নীতিগতভাবে আমিও কখনই এই জোটকে মন থেকে স্বীকৃত দিইনি। আমরা সত্যিই এবারে সাংগঠনিক দিক থেকে পুরোপুরিভাবে ব্যর্থ হয়েছি ।যা ৩৫ বছরের বামপন্থী আমলেও এই ধরনের ভরাডুবি কখনো ঘটেনি বাংলায়।” দলের বিরুদ্ধে এই ধরনের মন্তব্যের পরেও এখনো পর্যন্ত বর্ষীয়ান নেতা ক্লান্তি গঙ্গোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে রাজ্যের বামপন্থী নেতাদের কাছ থেকে তার বিরুদ্ধে কোনো ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণের কথা শোনা যায়নি।

LEAVE A RESPONSE

Your email address will not be published. Required fields are marked *